মে 24, 2006

খোলা ম্যানহোল

Posted in কবিতা, মায়ের লেখা Project Management 6:13 পুর্বাহ্ন লিখেছেন Aparna

প্রতিদিনের মত, কাজের শেষে,
চলেছে রাস্তায় অতি তাড়াতাড়ি।
উদ্‌বেগে, চিন্তায়, ভরা মুখ, ভাঙা গাল ,
যেতে হবে বাড়ি ।

ছেলেটার  জ্‌র , মেয়েটার কাশি-
টানাপোড়েনে স্ত্রীর মুখ  যেন ঝড়া ফুল বাসি। 
অনিচ্ছায় – বোঝা বয়ে নিয়ে যাওয়া বলদের মতো,
কোনদিকে নেই হুশ– চারিদিকে বিপদ যে কতো।

গাড়ি ঘোড়া পার হয়ে এসে
ওঠে ফুটপাতে,
জীবন করতে হরণ
মরণ যে ফাঁদ পাতে। 

খোলা ম্যানহোলে ডুবে গেল পূর্ণ শরীর,
নেই পাশে কেউ তারে আনিতে বাহির।
দম বন্ধ হয়ে আসে, তখনো মনেতে আশা–
ছেলে, মেয়ে, বন্ধু, পরিজন, স্ত্রীর ভালবাসা।
উদ্‌বেগে মাখানো মুখে, অভিমানে ভরা দুটি চোখ,
প্রতীক্ষায় ভাবে — এখনো আসেনা, কি দায়িত্বহীন লোক! 

সব শেষ হয়ে গেছে, আসবেনা আর,
শেষ হবে না তার ব্যর্থ প্রতীক্ষার
প্রতিদিন – “চলছে চলবে, আমাদের দাবী মানতে হবে”।
মরণমুখী ম্যানহোলের ঢাকনাটাখোলাই কি রবে? 

খোলা ছিল ম্যানহোল-দোষ তাতে কার?
হয়ে গেল তছনছ একটা নির্দোষ সংসার।  

~ রাণী রায়। 

মে 20, 2006

প্রিয় বন্ধুর জন্মদিনে

Posted in কবিতা, ভাইয়ের লেখা Project Management 6:17 অপরাহ্ন লিখেছেন Aparna

আজ আর কোন বাঁধনে ধরা দিও না
আজ আর জীবনের রোজনামচাটা সম্বল করে
প্রতিবন্ধী কোর না নিজেকে।

তার চেয়ে বরং পথে নেমে পড়ো।
রক্তিম মাটি দুই হাতে মেখে
নাও তার ঘ্রাণ–
আবেগে নাচো, হাসো, কাঁদো, গাও
হও মাতোয়ারা।

শুধু—

শুধু ফুল তুলো না
আজ ফুল হয়ে ফোটো।

~ অর্ণব রায়

মে 19, 2006

হতাশা

Posted in কবিতা, মায়ের লেখা Project Management 2:00 অপরাহ্ন লিখেছেন Aparna

অমৃত করিব পান
অমৃতে করিব স্নান
চাই শুধু চাই
ভাবিয়া অমৃত লইনু যাহা
কখন হল বিষ
ভেবে নাহি পাই 

~ রাণী রায়

অভিনয়

Posted in কবিতা, মায়ের লেখা Project Management 1:47 অপরাহ্ন লিখেছেন Aparna

হাসছো তুমি, দেখছি আমি
           তোমার এ হাসি কি কান্না নয়?
এমনি তর করছ ভান,
           যেন সকল দুঃখ করেছ জয়। 
আমার চোখকে দেবে ফাঁকি
           কেমন? অত সোজা নয় —
আর কেউ না জানুক, আমি জানি
           তোমার কান্না-হাসির পরিচয়। 

~ রাণী রায়

মে 18, 2006

কাজলা দিঘী

Posted in কবিতা, মায়ের লেখা Project Management 5:06 অপরাহ্ন লিখেছেন Aparna

কাজলা দিঘী,কাজলা দিঘী,কাজলা মেয়ে কৈ? 
পথের পানে চেয়ে আমি আশায় আশায় রই
কালকে আমার ঘুম আসেনি রাতে
শয্যা আমার ভিজেছিল চাঁদের জোছ্নাতে 

তোমার দিঘীর কালো জলে,সবার দেখি সুখ
আমার বেলায় আঁধার দেখি,দুখ্খে ঢাকি মুখ 
নাইতে নেমে সাঁতার কাটে কত শত জনা 
আমিই কেবল ভয়ে মরি সাঁতার যে নেই জানা

জ্যোত্স্না য্খন নাইতে নামে তোমার ভরা বুকে
বাতাশ তখন তোমায় দোলায়,পরম পাওয়ার সুখে
নদীর মতন নও তবুও ঢেউয়ের এতো খেলা 
বসে বসে দেখি আমি, কাটে সারা বেলা।

~ রাণী রায় 

স্বাধীনতা

Posted in আমার লেখা, কবিতা Project Management 2:26 অপরাহ্ন লিখেছেন Aparna

মাঝে মাঝে একলা কোথাও হারিয়ে যেয়ো৷
পেছনে পরে থাক বাকি সবকিছু-
য্ত সব দায়িত্ত, যত সম্প্র্ক
হারিয়ে যেও স্বাধীনভাবে, নিজের মনে৷

আমাদের রোজকার জীবনটা বড্ডো একঘেয়ে
এক একটা দিন অবিকল আরেকটা দিনের মতন-
বর্ণহীন, ক্লান্তিকর৷ 
আমার মতন, তোমারো কি বিদ্রোহ করতে
সাধ জাগে না?

তাই বলি…  মাঝে মাঝে  একলা কোথাও হারিয়ে  যেও৷